১৮ই জুলাই, ২০১৯ ইং, বৃহস্পতিবার

তৃণমূলের নেতাকর্মীদের ঘর থেকে টেনে বের করে ‘কুকুরের মতো’ মারার হুমকি

আপডেট: মে ৬, ২০১৯

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

তৃণমূলের নেতাকর্মীদের কুকুরের মতো মারার হুমকি দিলেন পশ্চিমবঙ্গের ঘাটাল আসনের বিজেপি প্রার্থী ভারতী ঘোষ।

ভোটারদের ভোট দিতে বাধা দিলে উত্তরপ্রদেশ থেকে এক হাজার লোক নিয়ে এসে তৃণমূলের নেতাকর্মীদের ঘর থেকে টেনে বের করে ‘কুকুরের মতো’ মারার হুমকি দিলেন তিনি। খবর এনডিটিভির।

এ ঘটনায় ভারতী ঘোষের প্রার্থীপদ বাতিলের দাবিতে নির্বাচন কমিশনে অভিযোগ জানানোর পরিকল্পনা করছে তৃণমূল।

একসময়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে ‘মা’ বলে সম্মোধন করতেন ভারতী ঘোষ। পরে তিনি বিজেপিতে যোগদান করেন।

এবারের লোকসভা নির্বাচনে ঘাটাল আসন থেকে তাকে প্রার্থী করেছে বিজেপি।

ঘাটালে প্রচারে গিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, লক্ষণরেখা পার করা উচিত নয় ভারতী ঘোষের। একটি পথসভায় তৃণমূল নেত্রী বলেন, তোমার সম্পর্কে আমার মুখ খুলিও না। ভারতী ঘোষের প্রার্থী পদ বাতিলের দাবিতে নির্বাচন কমিশনে অভিযোগ জানানোর পরিকল্পনা করছে তৃণমূল।

পশ্চিম মেদিনীপুরের পুলিশ সুপারের দায়িত্বে ছিলেন ভারতী ঘোষ। পাশাপাশি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের খুব ঘনিষ্ঠ বলে পরিচিত ছিলেন তিনি।

কিন্তু পরে সেই সম্পর্কে অবনতি ঘটে। যদিও তার কারণ জানা যায়নি। ভারতী ঘোষের দাবি তার বিরুদ্ধে ১০টি মামলা করেছে পুলিশ, তার মধ্যে রয়েছে তোলাবাজি এবং বাতিল হওয়া নোটের বিনিময়ে সোনার মামলাও। চলতি বছরের শুরুর দিকে তার গ্রেফতারির ওপরে স্থগিতাদেশ দিয়েছেন সুপ্রিমকোর্ট।

উল্লেখ্য, ২০১৭-এর ২৬ ডিসেম্বর পশ্চিম মেদিনীপুরের বাইরে বদলি করা হয় ভারতী ঘোষকে। দুদিন পর পুলিশের চাকরি থেকে ইস্তফা দেন তিনি।

তার ঠিক পরেই ভারতী ঘোষের সন্ধানে তল্লাশি শুরু করে পুলিশ। পরে ৯ ফেব্রুয়ারি দিল্লিতে বিজেপির সদর দফতরে গেরুয়া শিবিরে যোগ দেন তিনি।

ঘাটালে তৃণমূলের তারকা প্রার্থী অভিনেতা দীপক অধিকারীর বিরুদ্ধে তাকে প্রার্থী করে বিজেপি।

৭ দফা লোকসভা নির্বাচনের পঞ্চম দফা ভোটগ্রহণ চলে সোমবার। শেষ দফার নির্বাচনগুলোতে উত্তেজনার পারদ যেন বেড়েই চলেছে।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন