২৮শে মে, ২০২০ ইং, বৃহস্পতিবার

ঝালকাঠির রাজাপুরে রহস্যজনক ভাবে নিহত যুবকের লাশ উদ্ধার

আপডেট: এপ্রিল ৮, ২০২০

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

তারেক,ঝালকাঠি প্রতিনিধি। ঝালকাঠির রাজাপুরে রহস্যজনক ভাবে নিহত জাহিদ হোসেন স্বপন সিকদার (৩৫) নামে এক যুবকের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল মঙ্গলবার মধ্যরাতে উপজেলার বড়ইয়া ইউনিয়নের আদাখোলা গ্রামের নিজ বাড়ি থেকে তার মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়। নিহত স্বপন একই গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা শহিদুল ইসলাম ওরফে চান মিয়া সিকদারের ছেলে।
জানা যায়, নিহত স্বপনের পুটিয়াখালী বাজারে একটি মোবাইলের দোকান রয়েছে। আদাখোলা গ্রামে বাবার বাড়ি থেকে আধা কিলোমিটার দূরে নিজের বাড়িতে একা থাকতো স্বপন।স্ত্রীর সাথে বনিবনা না হওয়ায় এক বছর আগে স্বপনের সাথে বিবাহ বিচ্ছেদ ঘটে। সে প্রতিদিন বাবার বাড়িতে খাওয়া-দাওয়া করতো এবং অদূরেই তার নিজের বাড়িতে গিয়ে বসবাস করতো।
প্রতিদিনের ন্যায় মঙ্গলবার রাতে সে ভাত খেতে বাবার বাড়ি না আসায় বোন আসমা আক্তার ও ছোটভাই সজিব সিকদার রাত ১০টার দিকে স্বপনকে খুজতে তার বাড়িতে যায়। অনেক সময় ডাকাডাকি করে কোন সাড়া-শব্দ না পেয়ে তারা ঘরের দরজা ধাক্কা দিলে দরজা খুলে যায়। এ সময় স্বপনকে একটি জিন্সের প্যান্ট দিয়ে ঘরের আড়ার সাথে গলায় ফাঁস লাগানো ও ঝুলন্ত অবস্থায় দেখতে পায় আসমা ও সজিব। পরে থানায় খবর দিলে পুলিশ রাত ৩টার দিকে স্বপনের লাশ উদ্ধার করে।
নিহত স্বপনের মামা আমিনুল ইসলাম জানায়, ‘স্বপনের সাথে কারো কোন বিরোধ ছিল কি না, তারা খোঁজখবর নিয়ে দেখেছে। তবে প্রাথমিক ভাবে ধারণা করছে ‘স্বপনকে হত্যা করে কেউ লাশ ঘরের আড়ার সাথে ঝুলিয়ে রেখেছে। এঅবস্থায় ময়না তদন্ত প্রতিবেদন পাওয়ার পর পরিবারের পক্ষ থেকে এ বিষয়ে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’
রাজাপুর থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি তদন্ত) আবুল কালাম আজাদ জানায়, পুলিশ খবর পেয়ে রাতেই ‘লাশ উদ্ধার করেছে ও বুধবার সকালে ঝালকাঠি সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে। ময়না তদন্ত প্রতিবেদন পাওয়ার পরে তার মৃত্যুর প্রকৃত কারণ জানা যাবে।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন