৪ঠা ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, শুক্রবার

প্রতিদিন ৪০ মিনিট হাঁটা হার্ট অ্যাটাকের ঝুঁকি কমায়

আপডেট: জানুয়ারি ২৩, ২০১৯

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

আমাদের প্রতিদিনের জীবনযাত্রায় হাঁটা হয় না বললেই চলে। তবে প্রতিদিন সকালে যদি কেউ ৪০ মিনিট হাঁটেন তবে তার শরীর ও মন ভালো থাকবে ও ওজন নিয়ন্ত্রেণ থাকবে। মনে রাখতে হবে, যে কোনো রোগের একটা বড় কারণ হচ্ছে অতিরিক্ত ওজন। এছাড়া সুস্থভাবে বেঁচে থাকতে হলে হাঁটার কোনো বিকল্প নেই।

হার্ট অ্যাটাক কী?

হার্টের অ্যাটাককে চিকিৎসাবিজ্ঞানের ভাষায় বলে মেডিকোসিস মায়োকার্ডিয়াল ইনফার্কশন । হার্টে দুটি রক্তনালি থাকে, একটি হলো রাইট (ডান) করোনারি আর্টারি, আরেকটি হলো লেফ্ট (বাম) করোনারি আর্টারি।

এই দুটি রক্তনালিতে যদি কোনো কারণে চর্বি জমে থাকে, একে প্ল্যাক বা ব্লক বলা হয়। এই ব্লকের ওপর যদি আবার রক্ত জমাট বাঁধে, তখন এটি পুরোপুরি ব্লক হয়ে যায়। যখন শতভাগ ব্লক হয় তখন কিন্তু সত্যিই বিপদের কথা।শতভাগ ব্লক হলে বুকে ব্যথা ও হঠাৎ মৃত্যু। এসব ঘটনা হচ্ছে হার্ট অ্যাটাক।

অ্যাটাক কেন হয়?

হার্ট অ্যাটাকের অনেক কারণ রয়েছে তার মধ্যে অন্যতম হচ্ছে তাই অতিরিক্ত ওজন, অনিয়ন্ত্রিত ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ, বয়স, পরিবারে যদি কারো ডায়াবেটিস থেকে থাকে ইত্যাদি। এসব কারণে সবচেয়ে বেশি হার্ট অ্যাটাক হয়ে থাকে।

এছাড়া ধূমপান করা, অ্যালকোহল গ্রহণ, দুশ্চিন্তা, অলস জীবনযাপন বা সেডেন্টারি জীবনধারা রয়েছে, যারা চর্বিযুক্ত খাবার বেশি খাওয়া, ব্যায়াম না করা ইত্যাদি হার্ট অ্যাটাকের ঝুঁকি বাড়িয়ে দেয়।

নিয়ন্ত্রণে করণীয়

ধূমপান করা, অ্যালকোহল গ্রহণ, দুশ্চিন্তা, অলস জীবনযাপন বা সেডেন্টারি জীবনধারা রয়েছে, চর্বিযুক্ত খাবার বেশি খাওয়া যাবে না।

যদি কোনো কারণে হার্ট অ্যাটাক হয়েও যায় তবে তিনি এসব অভ্যাস থেকে নিজেকে নিয়ন্ত্রণ করেন তবে পরবর্তীকালে হার্ট অ্যাটাকের ঝুঁকি অনেক কমে যায়।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
আমাদের চ্যানেল ৩৬৫ ফেসবুক লাইক পেজ