৮ই মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, সোমবার

বাবুগঞ্জে টয়লেটের সাথে শহীদ মিনার!

আপডেট: ফেব্রুয়ারি ১৫, ২০২১

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

বাবুগঞ্জ উপজেলার ৬৬নং উত্তর ক্ষুদ্রকাঠী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের টয়লেটের সাথে শহীদ মিনার নির্মাণ করায় এলাকায় তোলপাড় ও ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। বিদ্যালয়ের মাঠের এক কোনে পাকা টয়লেট তার ঠিক পাশেই শহীদ মিনার নির্মান করা হয়েছে। সংশ্লিষ্ট সুত্রে জানা গেছে, স্থানীয় কদম আলী বেপারী বিদ্যালয় নির্মানের জন্য ২৪ শতাংশ জমি দান করেছেন কিন্তু স্কুলের ভবনের সামনে অনেক জায়গা থাকা সত্বেও টয়লেটের সাথে শহীদ মিনার স্থাপন করায় ক্ষেভের সৃষ্টি হয়েছে। সরেজমিনে গিয়ে স্থানীয়দের সাথে কথা বলে জানা গেছে, শহীদ মিনার নির্মানের সময় স্থানীয় এলাকার বাসিন্দারা ও কমিটির সদস্যরা আপত্তি জানালেও প্রধান শিক্ষিকা মোসাঃ জাহানারা পারভীন কারো কথায় কর্ণপাত করেননি বলে অভিযোগ উঠেছে। যদিও কর্তৃপক্ষ বলছে এলাকাবাসী ও কমিটির সভাপতির সাথে কথা বলে শহীদ মিনার নির্মিত হয়েছে। তবে বিষয়টিকে ভাষা শহীদদের প্রতি চরম অবমাননা বলে মন্তব্য করছেন স্থানীয়রা। তাই দ্রুত সেখান থেকে শহীদ মিনার সরিয়ে ভাষা শহীদের প্রতি সম্মান, তার সৌন্দর্য ও পবিত্রতা রক্ষার দাবী জানিয়েছেন তারা। এ বিষয়ে জানতে চাইলে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা মোসাঃ জাহানারা পারভীনের সাথে মোবাইলে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান,জায়গা স্বল্পতার কারণে ওখানে শহীদ মিনার করা হয়েছে। তবে আমার দৃষ্টিতে এটা কোন সমস্যা নয়। এ ব্যাপারে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মোঃ আকবর কবীর বলেন, বিষয়টি আমার জানা নেই,তবে শহীদ মিনার বিদ্যালয়ের শৌচাগারের সাথে স্থাপন করা হলে এটা শহীদ মিনারের অবমাননাকর। আমি বিষয়টি ক্ষতিয়ে দেখে ব্যবস্থা নিবো।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
আমাদের চ্যানেল ৩৬৫ ফেসবুক লাইক পেজ